কালিয়ায় আজিজুর হত্যাকান্ডের ঘটনায় আসামিদের গ্রেফতার দাবিতে মানববন্ধন

2

নড়াইল প্রতিনিধি : নড়াইলের কালিয়া উপজেলার কলাবাড়িয়া ইউনিয়নের চরকান্দিপাড়ার আজিজুর রহমান কটাই শেখ (৪৫) হত্যাকান্ডের ঘটনায় আসামিদের গ্রেফতার দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার (১১ মে) বিকেলে কলাবাড়িয়া বাজার এলাকায় এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন সরাফত হোসেন মোল্যা, ওছিকুর রহমান, হাসানুর রহমান প্রমুখ।
বক্তারা অভিযোগ করে বলেন, আজিজুর হত্যা মামলা তুলে নিতে বাদীর পরিবারসহ স্বাক্ষীদের হুমকি দেয়া হচ্ছে। এ প্রেক্ষিতে মামলার স্বাক্ষী হাসানুর রহমান ৯ মে নড়াগাতি থানায় জিডি করেছেন।
বক্তারা আরো জানান, গত ৮ এপ্রিল সন্ধ্যায় এলাকায় আধিপত্য বিস্তার ও কলাবাড়িয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের কমিটি গঠন নিয়ে কলাবাড়িয়া ইউনিয়নের বিলাফর-মূলখানা ও চরকান্দিপাড়া গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষে আজিজুর রহমান কটাই নিহত হন। নিহত আজিজুর চরকান্দিপাড়ার ওলিয়ার শেখের ছেলে। এ ঘটনায় অন্তত ১৫জন আহত হন।
কলাবাড়িয়া ইউপির ৩নং ওয়ার্ডের মেম্বার ও বিলাফর-মূলখানা গ্রামের মাতব্বর আব্দুল কাইয়ূম সিকদার এবং চরকান্দিপাড়ার মাতব্বর আবেদ শেখের লোকজনের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ সময় আবেদ শেখের আপন ভাই আজিজুর রহমানকে কুপিয়ে ও গুলি করে প্রতিপরে লোকজন হত্যা করে বলে অভিযোগ রয়েছে। হামলায় আবেদ শেখসহ উভয়পক্ষের লোকজন আহত হন।
এ হত্যাকান্ডের ঘটনায় আবেদ শেখ বাদী হয়ে নড়াগাতি থানায় ৬৭ জনের নামে হত্যা মামলা দায়ের করেন। বাদীপক্ষের অভিযোগ, একমাসের বেশি সময়ের মধ্যে আসামিদের গ্রেফতার করা হয়নি। এছাড়া হত্যাকান্ডে ব্যবহৃত অবৈধ আগ্নেয়াস্ত্রও উদ্ধার করতে পারেনি পুলিশ। এ কারণে নিহতের পরিবারসহ তাদের লোকজন আতঙ্কের মধ্যে রয়েছে। এছাড়া আসামিরা আদালত থেকে জামিনে এসে বাদী পক্ষের লোকজনকে মামলা তুলে নিতে হুমকি দিচ্ছে।
নড়াগাতি থানার ওসি আলমগীর কবির বলেন, আজিজুর রহমান হত্যাকান্ডের ঘটনায় ৬৭ আসামির মধ্যে ৪৭জন আদালতে আত্মসমর্পণ করেছেন। আর এলাকায় পুলিশ মোতায়েন থাকায় পরিবেশ স্বাভাবিক রয়েছে।